‘সাম্রাজ্য নিবেদন’

0Shares

শিল্পিত পারু’র কবিতা


সাম্রাজ্য নিবেদন

                    

এসো তাড়াতাড়ি

আর কিছুকাল হলে পার

আমিই দখল করে নেবো আমাকে;

তুমি এসে আর পাবে না কিছুই অবশিষ্ট।

যেভাবে ধেয়ে আসছে নিজের প্রেম,

দেরি হলে বেদখলে যাবে ঘর, জানালা, বারান্দা,চৌকাঠ !

তুমি এসে বসার জায়গাটুকুও যদি না পাও

এ বড় বেদনার হবে আমার জন্য !

আমি চাই তুমি আসো, 

দখলদারের মতো ছিনিয়ে নাও 

আমার রাত, জোছনা, বিকেলের আকাশ !!

আর সযত্নে সাজাও 

সন্ধ্যের গুমোট অন্ধকার, দুপুরের তৃষ্ণা;

দেরি হলে তুমি জানো,

মনের কার্নিশে বসা কবুতর, আর মগজে 

প্রকম্পিত ফুলগুলো নির্দয়ের মতো হবে অবহেলিত !!

আমার নৌকো, আমার জল, 

আর পাহাড়ের গায়ে নেমে আসা সুর, 

তোমার কব্জায় দিতে পারলে সে বড় নিশ্চিত হতে পারি;

যেভাবে গ্রাস করছি আমি আমাকে

তাতে সব আমিত্বের দখলে চলে যাচ্ছে !

তুমি তো জানো না, এই মায়া সাম্রাজ্য গড়েছি শুধু তোমাকে সমর্পণ করবো বলে;

আমার ভিতরে আরেক সাম্রাজ্যবাদী আমি

কি এক দুর্ভেদ্য অহমিকায় 

তাঁবু গাড়ছে প্রতিটি দরজায় !

এখনও আচমকায় বিচলিত হই দেখি

আমারি সিংহাসনে লেখা সাইনবোর্ড ‘প্রবেশ নিষেধ’

তুমি এসো জলদি, 

ভেঙ্গে দাও সব অহমিকার অট্টালিকা ;

তোমার দখলে নাও আমার সাম্রাজ্য বিবর্ণ হবার আগে;

এরপর আমার বাগানে 

আমি মালি হয়ে থাকি এক জীবন

আমারি রাজ্যপাটে তুমি হও সম্রাট ! 

আমি থাকি প্রশান্তিতে 

তোমারি মহিমান্বিত প্রজা হয়ে !!

শিল্পিত পারু

জারুলপুর / সেপ্টেম্বর,১৯

আরো পড়ুন :

‘ডালিমের মতো জীবন’

‘আত্নজের অহংকার’ কবিতা

0Shares

৫ thoughts on “‘সাম্রাজ্য নিবেদন’

Leave a Reply

Your email address will not be published.

x